মানবিকতা দেখালেন ভরতপুর-২(সালার)এর বিডিও, দুয়ারে সরকারের ডেটা এন্ট্রি কর্মীদের টাকা মেটালেন নিজের পকেট থেকে

স্বপন কারিকর, সালার, মুর্শিদাবাদ

মাস দুয়েক আগে দুয়ারে সরকার প্রকল্পের লক্ষী ভান্ডারের ফরম-এর ডেটা এন্ট্রি করেছিলেন ১৮ জন যুবক-যুবতী। মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে তাদের টাকা অ্যালটমেন্ট হলেও টেকনিকেল কোনো কারণে টাকা আটকে যায়।
এরপর ওই ১৮ জন যুবক-যুবতীর কাছে মশিহা হয়ে উপস্থিত হন সালার ব্লকের বিডিও আশিস মণ্ডল।সম্পূর্ণ নিজ উদ্যোগে নিজেরই একাউন্ট থেকে ওই কর্মীদের টাকা মেটালেন তিনি। পুজোর মুখে এই টাকা পেয়ে দারুন খুশি তারা।
এ ব্যাপারে বিডিও আশিস মণ্ডলকে প্রশ্ন করলে তিনি ক্যামেরার সামনে মুখ খুলতে চাইলেন না। বললেন, “সামান্য এতটুকু উপকারের জন্য প্রচার চাইনা। লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পে ডাটা এন্ট্রি করে ছেলেমেয়েগুলো কিছু পয়সার আশায়। এরপর টেকনিকাল ফল্টের জন্য টাকা পৌঁছয় নি। তাই সামান্য এটুকু করলাম।” আমরা সাংবাদিকরা বিডিও সাহেব কে পাঁচবার বলার পর একবার হয়তো মুখ খোলেন। আজও তিনি ক্যামেরার সামনে মুখ খুললেন না।
ওই ১৮জন যুবক-যুবতী সহ ব্লকের সমস্ত কর্মীরাই খুশি তাদের সাহেবের পুজোর মুখে পাশে দাঁড়ানোর জন্য।