গ্রামপঞ্চায়েত এর উদ্যোগে আপদকালীন কোয়ারেন্টাইন চিল্কিরহাটে

রবীন্দ্রনাথ বর্মন, কোচবিহার, ৪ এপ্রিল : চিল্কিরহাট গ্রামপঞ্চায়েত এর উদ্যোগে চিল্কিরহাট কান্তেশ্বরী হাই স্কুলে কোরোনা ভাইরাস এর আপদকালীন কোয়ারেন্টাইন সেন্টার তৈরি করা হল। করোনা ভাইরাসের হাত থেকে বাঁচতে সম্প্রতি ভীন রাজ্য ফেরত স্থানীয়দের এই কোয়ারেন্টাইন রাখা হবে। কোচবিহার ১ নং ব্লকের অন্তর্গত চিল্কিরহাট গ্ৰাম পঞ্চায়েত এলাকায় বানানো হয়েছে এই সেন্টার। আর এই সেন্টারে আপাতত প্রায় ৫০ জন লোকের থাকা, খাওয়ার ও অন্যান্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করা হয়েছে চিল্কিরহাট গ্রাম পঞ্চায়েতের তরফে। এই সেন্টারের বিভিন্ন রকম কাজে অবিরাম সাহায্য করেছে এই গ্রাম পঞ্চায়েতের সমস্ত গ্রামীণ সম্পদ কর্মীরা। ওই কর্মীরা প্রত্যেকটি গ্রামপঞ্চায়েতে ডেঙ্গু নিধনের কাজের সাথে সাথে বর্তমানে COVID-19 এর কাজ অতি দক্ষতার সাথে করে চলেছে দাবি স্থানীয়দের। এদিন এই সেন্টারে কাজে ছিলেন গ্রামপঞ্চায়েতের সভাপতি প্রদীপ কুমার দে, গ্রামপঞ্চায়েত প্রধান দিনবালা রায়। এছাড়াও ছিলেন গ্রামীণ সম্পদ কর্মীদের সুপারভাইজার রূপন মন্ডল, গ্রামীণ সম্পদ কর্মী ধনেশ্বর বর্মন, রশিদুল হোসেন, আশাপূর্ণা রায়, অতুল চন্দ্র বর্মন। এই ধরণের সুপরিকল্পিত বাস্তবায়ন করায় স্থানীয়রা সাধুবাদ জানিয়েছেন।

এদিনে গ্রামীণ সম্পদ কর্মীদের পক্ষে সুপারভাইজার রুপন মন্ডল বলেন ‘আমাদের কোন রকম স্বাস্থ্যবীমা না থাকা সত্বেও নিজেদের জীবনের ঝুকি নিয়ে মারণ ভাইরাস এর কাজ করে যাচ্ছি, আর দেশ ও দশের স্বার্থে করে যাবো। ‘

তিনি গ্রামীণ সম্পদ কর্মীদের স্বাস্থ্যবীমার আওতায় নিয়ে আসার জন্য সরকারের কাছে আবেদন আর্জি রাখেন।