পুড়ে গেল বিঘার পর বিঘা খড়িবন, ঝলসে যেতে পারে বন্যপ্রাণী শঙ্কায় পরিবেশ প্রেমীরা

কল্যাণ অধিকারী, হাওড়া

সোমবার হাওড়ার জয়পুর থানার ঝামটিয়া এলাকায় তিরিশ বিঘা খড়িবন আগুনে পুড়ে গেল। ঘটনাস্থলে পৌঁছায় দমকলের ২টি ইঞ্জিন। কিন্তু ঘটনাস্থলে পৌঁছাবার রাস্তা না থাকায় দমকলের টিমকে যথেষ্ট বেগ পেতে হয়। লম্বা হোস পাইপ ফেলে কাজ করতে হয়েছে। পশুপাখি ঝলসে যাওয়ার আশঙ্কা।   

ঝামটিয়া এলাকার খড়িবনে রাজ্য প্রাণী বাঘরোল, বিভিন্ন প্রজাতির বিষধর সাপ, ব্যাঙ, শিয়াল সহ একাধিক বন্যপ্রাণীর বাসস্থান। সোমবারের ভয়ঙ্কর আগুনে পুড়ে গিয়েছে বিস্তৃত এলাকার খড়িবন। মানুষের মৃত্যু না হলেও বহু পশুপাখি আগুনে ঝলসে যেতে পারে এমনটাই আশঙ্কা করছে পরিবেশ প্রেমীরা। ওই এলাকায় বিভিন্ন সময় খড়িবনের উচ্ছিষ্ট পুড়িয়ে দেয় স্থানীয়রা। কিন্তু ভুল থেকে শোধরালো না কেন প্রশ্ন তুলছে বিভিন্ন মহল। তাঁদের কথায়, ওই এলাকায় বহু বিরল প্রজাতির পশুপাখি এমনকি বাঘরোল রয়েছে। ভয়ঙ্কর আগুনে কি অবস্থায় তারা রয়েছে কিছুই বোঝা যাচ্ছে না। 

উলুবেড়িয়া দমকল দফতরের এক কর্তা জানান, “আমাদের কাছে দুপুর ১টা ৩৫মিনিটে ফোন আসে। বলা হয় ঝামটিয়া হাইস্কুল এলাকায় খড়িবনে আগুন লেগেছে। সেইমতন আমাদের মাঝারি সাইজের দুটি গাড়ি ঘটনাস্থলে দ্রুত পৌঁছায়। কিন্তু ঘটনাস্থলে গাড়ি না পৌঁছানোয় লম্বা হোস পাইপ ফেলে কাজ করতে হচ্ছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ফুল টিম কাজ করছে। আগুন লাগার প্রকৃত কারণ জানা না গেলেও প্রাথমিক অনুমান উচ্ছিষ্ট থেকে আগুন ছড়িয়ে থাকতে পারে ! “