ভাইরাল জ্বর কেন হয়?

শর্মিষ্ঠা দত্ত : –

      হঠাৎই আবহাওয়া কিছুটা ঠান্ডা হয়ে যাওয়া আর তার সাথে প্রায় কদিন বৃষ্টির যোগ হয়ে হচ্ছে ভাইরাল জ্বর। মূলত আবহাওয়া পরিবর্তন হয়ে যাওয়ায় আমাদের দেহের ইমিউনিটি কিছুটা কমে যায়, আর বেশিরভাগ ক্ষেত্রে এটি ভাইরাস জ্বর। আসলে জ্বর হলো একটি লক্ষণ। এ থেকে বোঝা যায় তার শরীরে একটি জীবাণু ঢুকেছে। শতকরা ৯০ ভাগ জীবাণু হল ভাইরাস।
কিন্তু কখন বুঝবেন যে এটি ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন?
যখন চার পাঁচ দিনেও জ্বর কমবে না বরং আরো অবনতি হবে।

ডাক্তার কে.জি. মুখার্জির মতবাদ অনুযায়ী এই জ্বরের প্রকোপ টা বেশি দেখা যায় গ্রীষ্ম ও বর্ষার মাঝামাঝি সময়। এই জ্বরের লক্ষণ প্রথম দিন থেকেই খুব মাথা ব্যথা ও প্রচণ্ড দুর্বল ভাব দেখা যায়। তবে এই জ্বর ছোঁয়াচে নয়। কিন্তু নতুন করে যাতে ঠান্ডা না লাগে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। অবশ্যই ডাক্তারবাবুর সাথে পরামর্শ করে ওষুধ খাওয়া উচিত। এই সময় এক-দু দিন স্নান করা বাদ দিলে ভালো হয় তবে মাথা ধোয়ানো অবশ্যই উচিত। ছোট শিশুদের যদি জ্বর হয় তাহলে জল ফুটিয়ে দেওয়া উচিত। জ্বরের সময় একটু হালকা খাবার খাওয়া উচিত। বেশি তেল ঝাল খাওয়া উচিত নয়। এবং অবশ্যই চিকিৎসা দ্রুত করান উচিত। ঠিক মতো ওষুধ খেলে দুই থেকে তিন দিনের মধ্যে জ্বর চলে যাবে।