রাতে দেরিতে ঘুম, গড় আয়ু কমায়!

স্বপন কারিকর

কথায় আছে স্বাস্থ্যই সম্পদ। তাই ডাক্তার মশাইরা বলেন, সুস্থ থাকবে হলে রাতে তাড়াতাড়ি ঘুমান আর ঘুম থেকে উঠুন সকাল সকাল। কিন্তু আমরা সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাস্ত থাকতে থাকতে রাত ১২টা,১টা, এমনকি ২টা হয়ে যায় ঘুমাতে। তাই ঘুম থেকে উঠতেও দেরি হয়ে যায়।আর এ থেকেই আমাদের স্বাস্থ্যের ও যায় বারোটা বেজে । মানে আমাদের গড় আয়ু সাড়ে ছবছর কমে যেতে পারে। এ কথা আমার নয়। কথাগুলি বলছেন গবেষকরা।

আমেরিকার একদল গবেষক সাড়ে চার লক্ষ মানুষের উপর গবেষণা চালিয়ে দেখেন,রাতে দেরিতে ঘুমালে ৯০% মানুষ মানসিক রোগের শিকার হচ্ছেন। তাঁরা সাধারণত চার শ্রেণীর মানুষকে নিয়ে পরীক্ষা করেন,১) যারা নিয়মিত সকালে ঘুম থেকে ওঠেন, ২) মাঝে মাঝে সকালে ওঠেন,৩) মাঝে মাঝে দেরি করে ঘুমান ও ৪) যারা নিয়মিত রাত জাগেন। পরীক্ষায় দেখা গেছে, যারা রাতে দেরি করে ঘুমান ও সকালে দেরি করে ওঠেন তাদের অকাল মৃত্যুর ঝুকি বেড়ে যাচ্ছে। আর শারীরিক ও মানসিক জটিলতায় ও ভুগছেন বেশি। ফলে তাদের গড় আয়ু ও কমে যাচ্ছে।

শুধু তাই নয়। যারা দেরি করে ঘুমোচ্ছে তাদের ৩০% মানুষ ডায়াবেটিসে ভুগছেন এবং অন্ত্রের বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিচ্ছে।

তাই নিজেকে এবং নিজের পরিবারকে ভাল রাখতে রাতে যথাসম্ভব তাড়াতাড়ি ঘুমান। আর সকালে ঘুম থেকে উঠে একটু প্রাতঃভ্রমন করুন।