চাওয়ালার ” ধোঁকায় কি ক্ষুব্ধ চা শ্রমিকেরা?

 

রুমি সরকার , গুয়াহাটি : কথায় কথায় নিজেকে ” চাওয়ালা ” বলেন তিনি । লোকসভা ও বিধানসভা ভোটের প্রচারে এসেও নিজের এই অতীত পরিচয় তুলে ধরে অসমের দশ লক্ষ চা শ্রমিকের মজুরি – ভাতা বাড়ানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী । কিন্তু সাড়ে চার বছর পরেও প্রতিশ্রুতি মতো দৈনিক সাড়ে তিনশো টাকা তো দূরের কথা , রাজ্যের চা শ্রমিকেরা দৈনিক মাত্র ১১৫ – ১৬৭ টাকা হারে বেতন পাচ্ছেন । শ্রমিকদের তাই প্রশ্ন – আর কবে কথা রাখবেন ” চাওয়ালা ” প্রধানমন্ত্রী !

অসম চা মজদুর সঙ্ঘের সাধারণ সম্পাদক রূপেশ গোয়লা জানান – প্রধানমন্ত্রী সাড়ে তিনশো টাকার দৈনিক মজুরির প্রতিশ্রুতি দিয়ে বাগানের ভোট চেয়েছিলেন । দেড় বছর আগে ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ করার জন্য কমিটি ও গড়া হয় । কিন্ত আজ পর্যন্ত সেই কমিটি ও কোনো সিদ্ধান্তে আসতে পারেনি । এটিএম থেকে টাকা তোলার স্বপ্ন দেখানো হয়েছিল । কিন্তু চা বাগানগুলিতে এটিএম বসাতে পারেনি সরকার । চা শ্রমিকদের অভিযোগ – এই সব কাজ যদি নাই করতে পারে , শুধু শুধু মিথ্যে প্রতিশ্রুতি দেওয়ার দরকার ছিল না তাদেরকে !