ক্রিকেট বিশ্বকাপ:২০১৯

পরিতোষ দাস: : ২০১৯ এ আসছে ক্রিকেট বিশ্বকাপ। আসছে আবার দেশে দেশে ক্রিকেট যুদ্ধ। আগামী বছর ইংল্যান্ডে বসবে বিশ্বকাপ এর আসর। টুর্নামেন্টের মূল পর্বে পৌঁছনোর পর্ব শেষ হয়েছে।গত বছর ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত আইসিসি ওয়ানডে ব়্যাঙ্কিংয়ে যে আটটি দল তালিকায় প্রথম আটে ছিল, তারা সরাসরি বিশ্বকাপের মূল পর্বে আগেই প্রবেশ করেছে। যার মধ্যে রয়েছে আয়োজক দল ইংল্যান্ড। এছাড়া বাকি সাত দল হল ভারত, অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, নিউজিল্যান্ড, শ্রীলঙ্কা, পাকিস্তান এবং বাংলাদেশ। বাকি ছিল দুটি দলের প্রবেশ। বাকি দুটি দলকে আসতে হত কোয়ালিফাইং রাউন্ডের খেলা খেলে। আর সেখানেই ঘটেছে বাজিমাত।সুপার সিক্স গেমের শেষ রাউন্ডে স্কটল্যান্ডকে হারিয়ে ইন্ডিজরা বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে নিয়েছেন। অন্যদিকে, সুপার সিক্সের ফাইনালে আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে দিয়ে এই প্রথমবার বিশ্বকাপে অংশ নেওয়ার সুযোগ পেয়ে গেছে আফগানিস্তান। আফগানিস্তান কিন্তু বেজায় খুশি সুযোগ পেয়ে।
এবার বিশ্বকাপে দল কম থাকায় আলাদা করে কোনও গ্রুপ করা হয় নি। একটি গ্রুপেই রাখা হচ্ছে দশটি দলকে। প্রত্যেকটি দল বাকি ন’টি দলের বিরুদ্ধে ম্যাচ খেলবে। নকআউট পর্বের মধ্যে দিয়ে সেমিফাইনালে পৌঁছে যাবে চারটি দল। তারপর চারটি দলের মধ্যে হবে ফাইনালে ওঠার লড়াই। লড়াই জয় করে যে দুটি দল পৌঁছাবে ফাইনাল খেলতে, তাদের মধ্যে হবে বিশ্বের সেরা হওয়ার লড়াই।
তবে মাত্র দশটি দল নিয়ে বিশ্বকাপ হওয়ায় সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে আইসিসি-কে। কারণ যেসব দল টেস্ট খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে, তাদের প্রত্যেককেই বিশ্বকাপে সুযোগ দেওয়ার কথা ভাবা হয়েছিল। কিন্তু শেষমেশ তেমনটা হয়নি। আগামী বছর ৩০ মে শুরু আইসিসি বিশ্বকাপ। বিশ্বকাপ জয় করে কারা বাজিমাত করে সেটার উত্তর দেবে সময়। এইদিকে ভারত পুরোদমে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে। ভারতীয় দলের অধিনায়ক থেকে শুরু করে রোহিত শর্মা, কুলদীপ প্রভৃতি খেলোয়াড়রা দুর্দান্ত ফর্মে আছেন। ভারত ছাড়াও বাকি দলগুলির ও পাখির নজর ২০১৯ বিশ্বকাপের দিকে। শোনা যাচ্ছে সাউথ আফ্রিকার কিংবদন্তি তারকা এবিডি নাকি ২০১৯ আবার ফিরে আসছেন ২২গজে। দেখা যাবে ব্যাট হাতেও। এই খবর শুনে আল্লাদে আটখানা প্রায় সকল ক্রিকেট প্রেমী। বাকি এখনো বেশ কয়েকটি মাস,কিন্তু বিশ্বকাপ এর উত্তেজনা যেন ধীরে ধীরে ছড়িয়ে পড়েছে সবার মধ্যে।