অ্যাডিলেডে জয়ের বাতাসে ভাসলো ইন্ডিয়া

 

সৌমিত্র চক্রবর্তী: বোলিং পিচ,জমজমাট লড়াই তার মধ্যেও কিন্তু, শেষরক্ষা হল না অস্ট্রেলিয়ার। স্টার্ক-কে প্যাভিলিয়নে ফেরাতেই ভারতের জন্য জয়ের রাস্তাটা অনেকটাই পরিস্কার হয়ে গিয়েছিল, অশ্বিনের বলে কে এল রাহুল হ্যাজেলউডের ক্যাচ ধরতেই জয় পেয়ে যায় ভারত।
রবিবার চতুর্থ দিনের খেলার শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ছিল ৪ উইকেটে ১০৪ রান। ভারতীয় বোলার সামি, বুমরাহ,অশ্বিন প্রমূখদের দাপটে পিচে বেশিক্ষণ দাঁড়াতে পারেনি অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যানরা। অ্য়ারন ফিঞ্চ, হ্যারিস, খোয়াজা, হ্যান্ডসকম্বদের ধীরে ধীরে প্যাভিলিয়ন-এর রাস্তা দেখায় ভারতীয় বোলাররা।
পষ্ণম দিনের খেলার শুরু হতেই অস্ট্রেলিয়ার ইনিংস-কে টেনে তোলার দায়িত্বটা নিয়ে নিয়েছিলেন শন মার্শ। খেলার শুরুতে অধিনায়ক পেইন-ও হেড অনেকটাই ইনিংসকে সামলে ধরেন। কিন্তু একে একে সব উইকেট হারিয়ে ধরাশায়ী হয়ে পরে ক্যাঙ্গারু বাহিনী।
খেলার সেরা হন পূজারা। এই ম্যাচে তিনি মোট একটি শতরান ও একটি অর্ধ শতরান করেন। বিরাট কোহলিও এই ম্যাচে নতুন এক রেকর্ডের মালিক হন। ভারতীয় হিসাবে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে দ্রুততম ১০০০ রানের নজির গড়েন তিনি।
এইদিন বিরাট কোহলি এই জয়ের জন্য বোলারদের যাবতীয় কৃতিত্ব দেন। বোলাররা অনবদ্য বোলিং করেছে বলেও সাংবাদিক বৈঠকে উল্লেখ করেন বিরাট। জেতার পরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিনন্দনের ভিড় উপচে পরে।